ত্বক কালো হয় যেসব কারণে!

নতুন টিপস ও লেখা পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক করুন|

ত্বক কালো হয় যেসব কারণে!

ত্বক যেন পুড়ে ছাই। যেখানে সেখানে কালো দাগ। সেই দাগ ছোপের আড়ালে যেন আসল চেহারাটাই ঢেকে যায়। বেশিরভাগ নারীদের কাছে এটি সাধারণ একটি সমস্যা। তবে শুধু রোদে পুড়ে ত্বক কালো হয় না। আরো বিভিন্ন কারণ রয়েছে স্কিন কালো হয়ে যাওয়ার পিছনে। ত্বকের সৌন্দর্য ধরে রাখতে তাই আগে থেকেই জেনে রাখুন,

কি কি কারণে ত্বক কালো হয়ে যায়-

হাইপার পিগমেন্টেশন: ত্বকের মধ্যে থাকে কোষ দ্বারা উত্‍পন্ন মেলানিন। এই রঞ্জক পদার্থটির পরিমাণের উপর নির্ভর করে ত্বকের রং কেমন হবে। সাদা না শ্যামলা নাকি কালো। ত্বকে মেলানিনের মাত্রা অতিরিক্ত হলে, তখন ত্বক কালো হয়ে যায়।

ভিটামিনের অভাব: ত্বকের উজ্জ্বলতা ও সুস্বাস্থ্যের জন্য ভিটামিন এ, বি, সি এবং বি-কমপ্লেক্স খুব গুরুত্বপূর্ণ। যদি শরীরে এইসব উপাদানের অভাব থাকে, তাহলে ত্বক কালো হয়ে যায়। ম্লান দেখায়।

See also  ত্বকের সৌন্দর্য বাড়াতে লেবুর ব্যবহার | Lemon to enhance the Beauty

চামড়ার অসুখ: চর্মরোগের কারণেও অনেকসময় ত্বক পুড়ে যায় এবং কালো হয়ে যায়। লিচেন সিমপ্লেক্স ক্রনিকাসের মতো সমস্যার কারণে ত্বক মোটা হয়ে যায়। জ্বালা যন্ত্রণা দেখা দেয়। চামড়া কালো হয়ে যায়।

অপুষ্টি: শরীরে যদি সঠিক পুষ্টি না পৌঁছায়, তাহলেও ত্বক কালো হয়ে যেতে পারে।

লিভারের সমস্যা: বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ত্বক কালো হয়ে যাওয়ার পিছনে এই কারণটি দায়ী থাকে।

হরমোনের পরিবর্তন: বিভিন্ন বয়সে শরীরের হরমোনের পরিবর্তন হতে থাকে। বিভিন্ন সময় বিভিন্ন হরমোন ক্ষরিত হয় শরীরে। যেমন, গর্ভাবস্থায় বা গর্ভনিরোধক ওষুধ খাওয়ার কারণে শরীরে যে হরমোন ক্ষরিত হয়, তার কারণেও ত্বক কালো হয়ে যেতে পারে।

জিনগত কারণে: ত্বকের রং অনেক জিনের উপরও নির্ভর করে। বাবা-মায়ের গায়ের রং অনুযায়ী সন্তানের গায়ের রং হয়। তবে তার ব্যতিক্রমও আছে।

See also  শরীরের দুর্গন্ধ দূর করার কয়েকটি সহজ উপায়

সূর্যের ক্ষতিকারক আলোকরশ্মি: ত্বক কালো হয়ে যায় সূর্যের ক্ষতিকারক আলোকরশ্মির কারণে। ক্ষতিকারক ইউভি-রেয়াস সংস্পর্শে আসা মাত্র ত্বকে মেলানিনের মাত্রা বৃদ্ধি পায়। যা ত্বকে কালচে ভাব আনে। অত্যধিক সূর্যের সংস্পর্শে এলে ইউ-রে ত্বকের সুস্বাস্থ্য কেড়ে নেয় এবং ত্বককে ম্লান ও কালো করে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*