এয়ারটেল ওয়াই-ফাই (Wi-Fi)কলিং কী, ও এর ব্যবহার

এয়ারটেল ওয়াই-ফাই

এয়ারটেল ওয়াই-ফাই (Wi-Fi)কলিং কী

এয়ারটেল গ্রাহকদের আনলিমিটেড ভয়েস কলের পরিষেবা দেওয়ার জন্য বাজারে নিয়ে এলো নতুন ওয়াইফাই কলিং ।যা আপনি অল্প ডাটা খরচা করলেই পেয়ে যাবেন উন্নত মানের ভয়েস কল।কোম্পানি তরফ থেকে এমনটাই জানানো হয়েছে।ওয়াইফাই কলিং করে গুণমান নিয়ে অনেক গ্রাহক প্রশ্ন তুলেছেন।তবে কোম্পানি তরফ থেকে জানানো হয়েছে। যে ঘরের মধ্যে কিংবা অফিসে আগের তুলনায় ভয়েস কলের গুণমান অনেক অংশে বৃদ্ধি পাবে।এই পরিষেবায় সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে।সিগন্যাল এর মাত্রা সব জায়গায় শক্তিশালী থাকবে কোম্পানি তরফেজানানো হয়েছে

কোম্পানি থেকে আরও দাবি করা হয় ভারতে ওয়াইফাই কলিঙ্গের (Wi-Fi) পরিষেবা প্রথম এয়ারটেলের হাত ধরেই ভারতে টেলিকম সংস্থা আসেছে ।

ওয়াইফাই কলিং এর সুবিধা

  1. স্মার্ট ফোনের সিম বা কলিং অ্যাপ (অ্যাপলিকেশন)  ছাড়াই ব্যবহার করা যাবে।
  2.  যে সব জায়গায় খারাপ বা কোনও নেটওয়ার্ক যোগাযোগ নেই, সেখানে অত্যন্ত সহজেই আউটগোয়িং কল করা সম্ভব হবে।
  3. এছাড়া, ‘এয়ারটেল ওয়াই-ফাই কলিং’-এর মাধ্যমে কল করতে কোনও বাড়তি খরচা করতে হবেনা গ্রাহকদের।
  4.  ( Wi-Fi ) মাধ্যমে গ্রাহকরা যে কোনও নেটওয়ার্কে এসে ফোন-কলের মতো স্বচ্ছ ও উচ্চ গুণমানের ভয়েস কল করতে পারে।

এয়ারটেল কোম্পানি থেকে জানানো হয়েছে। আপনি যখন ওয়াইফাই কলিং ব্যবহার করছেন। তখন এয়ারটেল নেটওয়ার্ক সংযোগ ব্যবহার করছেন না।ভয়েস কলের জন্য বদলে ওয়াইফাই নেটওয়ার্ক ব্যবহার করা হচ্ছে।জম্মু-কাশ্মীর ছড়া ভারতের সমস্ত রাজ্যে এই পরিষেবা চালু করা হয়েছে। এই পরিষেবা আমাদের দেশে সবকটি ব্রডব্যান্ডে পাওয়া যাচ্ছে ।আপনি ভারতবর্ষের যেখানে থাকুন এয়ারটেল ওয়াইফাই কলিং এর মাধ্যমে নিকটবর্তী আত্মীয়  , বন্ধু এবং এমনকী গোটা বিশ্বের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারবেন।

এযারটেলে আনা একটি যুগান্তকারী প্রযুক্তি।যা পরের প্রজন্মকে অনেক এগিয়ে নিয়ে যাবে। নতুন পরিষেবার গ্রাহক সংখ্যা ১ কোটি পার করে ফলবে।এই পরিষেবা ব্যবহার করা অত্যন্ত সহজ ও সরল।

কোন কোন কোম্পানির মোবাইল ফোনে এর তালিকায় রয়েছেঃ-

  • ১৬টি ব্র্যান্ডের ১০০টির ওপর স্মার্টফোন মডেলে এই পরিষেবা মিলছে।
  • Xiaomi , Samsung , OnePlus , Apple iPhone , Vivo, Tecno , Infinix, Gionee, Micromax , Coolpad , Mobiistar , Micromax , Xolo ZX, Panasonic

মোবাইল ফোনের মডেলঃ-

Xiaomi: Redmi K20, Redmi K20 Pro, POCO F1, Redmi 7A, Redmi 7, Redmi Note 7 Pro and Redmi Y3

Samsung: Galaxy J6, Galaxy A10s, Galaxy On6, Galaxy M30s, Galaxy S10, Galaxy S10+, Galaxy S10e, Galaxy M20, Galaxy Note 10, Galaxy Note 9, Galaxy Note 10+, Galaxy M30, Galaxy A30s, and Galaxy A50S

OnePlus: OnePlus 7, OnePlus 7T, OnePlus 7Pro, OnePlus 7T Pro, OnePlus 6, and OnePlus 6T

Apple iPhone models starting 6s and above (including all variations of different models).

Vivo: V15 Pro, Y17

Tecno: Phantom 9, Spark Go Plus, Spark Go, Spark Air, Spark 4 (KC2), Spark 4-KC2J, Camon Ace 2, Camon Ace 2X, Camon12 Air, and Spark Power

Infinix: Hot 8, S5 Lite , S5, Note 4, Smart 2, Note 5, S4, Smart 3, and Hot 7

Gionee: F205 Pro and F103 Pro

Asus: Zen Phone Pro and Zen Pro Max

Wi-Fi কেমন করে ব্যবহার করবেন:-

  • প্রথমে মোবাইল সেটিং এ গিয়ে ওয়াইফাই কলিং অন করুন তারপর ওয়াইফাই ব্যবহার করতে পারবেন।
  • আপনার স্মার্টফোনের মডেলে airtel.in/wifi-calling  ব্যবহার করা যাবে কি না তা প্রথমে দেখে নিন।
  • এয়ারটেলের প্রকাশ করা তালিকাভুক্ত থাকে তবে তারা ডিভাইস অপারেটিং সফ্টওয়্যার (ওএস) সর্বশেষতম আপগ্রেডের পর ওয়াই ফাই কলিং ব্যবহার করতে পারবেন।
  • ভোলটে(ভয়েস ওভার এলটিই) চালু রাখুন।

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.