|

ঝাড়খণ্ডে গ্রেফতার ৫ জন ৪৯ লক্ষ টাকা সহ

ঝাড়খণ্ডে গ্রেফতার ৫ জন ৪৯ লক্ষ টাকা সহ

ঝাড়খণ্ডের তিন জন কংগ্রেস নেতা সহ পাঁচ জন গ্রেফতার। পুলিশ জানিয়েছে কংগ্রেস বিধায়কের গাড়িতে ৪৯ লক্ষ টাকা পাওয়া যায় ।  পুলিশকে বিধায়করা জানিয়েছে তারা নাকি কলকাতায় এসেছে শাড়ী কেনার জন্য।

ঝাড়খণ্ডের তিন জন কংগ্রেস বিধায়ক অনেক টাকা নিয়ে আসার সময় পুলিশ তাদেরকে ফলো করে। শেষমেশ শনিবার ওই তিন জন কংগ্রেস বিধায়কে পুলিশ ধরে ফেলে। এবং রবিবার আরও দুজনকে পুলিশ গ্রেফতার। পুলিশ তিন জন কংগ্রেস বিধায়ক সহ আরও দুজন মোট পাঁচ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এর পর পুলিশ পাঁচ জনকে সিআইডি কাছে পাঠানো হয়।সিআইডি এদের পাঁচ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে টাকার ব্যাপারে। কিন্তু তাঁরা টাকার ব্যাপারে কোনও কথা বলেনি। তাই তাদেরকে পুলিশ গ্রেফতার করে।

আরও জানাগিয়েছে জিজ্ঞাসাবাদের সময় পুলিশকে তাঁরা জানায় তাঁরা নাকি কলকাতায় এসেছে শাড়ী কেনার জন্য। কিন্তু পুলিশ তদন্ত করে জানতে পেরেছে তাঁরা এর আগে গুয়াহাটিতে গিয়েছিল। তাই পুলিশের প্রশ্ন তাঁরা যদি কলকাতায় এসেছে শাড়ী কেনার জন্য। তাহলে এর আগে গুয়াহাটিতে গিয়েছিল কানো এত টাকা নিয়ে। কিন্তু তাঁরা গুয়াহাটিতে যাবার কথা গোপন করে তাই পুলিশের স্যন্দেহ হয় এবং গ্রেফতার করে।

পুলিশ সুত্রে জানাগিয়েছে গাড়ি সামনে  নিয়ে যাছিল তাঁরা বিধায়কের বোর্ড ছিল। এই গাড়ির  ভেতরে তিনজন কংগ্রেস বিধায়ক ছিল। এই গাড়িতে জামতাড়া, খিজরি, কোলেবিরার বিধায়করা ছিল। জামতাড়ার বিধায়কের নাম ইরফান আনসারি। কোলেবিরার বিধায়কের নাম নমন বিক্সল।  খিজরির বিধায়কের নাম রাকেশ কাচ্ছাপ। জানাগিয়েছে এরা তিনজনই কংগ্রেসের বিধায়ক। এদের গাড়ি আটক করার পর তল্লাশি করলে অনেক টাকা উদ্ধার করে। এর পর পুলিশ তাদেরকে সারারাত জেরা করে।

পরের দিন পুলিশ জানায় গাড়ি থেকে উদ্ধার করা মোট টাকার পরিমান ৪৯ লক্ষ টাকা ।পুলিশ আরও জানতে পারে তাঁরা মন্দারমনিতে একদিন থেকে ওড়িশা যাবার কথা ছিল। এই পুরো ঘটনায় তৃণমূল তীব্র সমালোচনা করে। এছাড়াও তৃণমূলের আরও দাবী এই পুরো ঘটনায় বিজেপিও যুক্ত আছে।


প্রতিবেদন

এই প্রতিবেদনটি পড়ার জন্য ধ্যনবাদ । এই পেজটি ও ওয়েবসাইট সম্পর্কে আপনারদের বন্ধু বান্ধবদের জানান। আমাদের ফেসবুক পেজ ফলো করুন । আমাদের প্রতিবেদনটি  ফেসবুক বা সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করুন । ধন্যবাদ এই প্রতিবেদনটি পড়ার জন্য ।   

 

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.