|

Vastu dosh : আপনার বাড়িতে কিংবা অফিসে বাস্তুদোষ আছে কিনা বুঝবেন কিভাবে

আপনার বাড়িতে কিংবা অফিসে বাস্তু দোষ আছে কিনা বুঝবেন কিভাবে

Vastu dosh : আপনার বাড়িতে কিংবা অফিসে বাস্তু দোষ আছে কিনা বুঝবেন কিভাবে। বাস্তুদোষ একটা বড় সমস্যা যার কারণে আপনার বাড়িতে কোন উন্নতি হয় না  অফিসে উন্নতি হয় না এবং বাড়িতে সবসময় অশান্তি লেগে থাকে। তাই আজ আমরা আলোচনা করবো বাস্তুদোষ সম্পর্কে। আপনার বাড়িতে বাস্তু দোষ আছে কিনা বুঝবেন এই কয়েকটি কারণ থেকে। 

এই বাস্তুদোষ আমাদের জীবনের একটা বড় সমস্যা। আপনার বাড়িতে কিংবা অফিসের বাস্তু দোষ থাকলে প্রথমত আপনার অফিসের কোনো উন্নত হবে না।  বাড়িতে সব সময় সমস্যা লেগেই থাকবে। অর্থনৈতিক উন্নতি হবে না। এই বাস্তুদোষ এমন একটি  সমস্যা।  যা আমরা চোখে দেখতে পাই না কিন্তু আমাদের চারপাশে যেসব ঘটনা ঘটছে তা দেখে আমরা অনুভব করতে পারি।  

কিন্তু আমরা জানবো কিভাবে যে আমাদের অফিসে এবং বাড়িতে বাস্তুদোষ এর সমস্যা রয়েছে। তাহলে জেনে নেওয়া যাক আমাদের সঙ্গে কি কি ঘটনা ঘটলে বুঝতে পারব যে বাস্তুদোষ এর সমস্যা রয়েছে। 

সারাদিন ক্লান্তি অনুভব করা

 ধরো  আপনার রাত্রে খুব ঘুম ভালো হয়েছে।  কিন্তু ঘুম থেকে উঠেই আপনি নিজেকে ক্লান্তি অনুভব করছেন। ক্লান্তি আপনাকে ঘিরে ধরেছে। আপনি ভাবলেন চা কিংবা কফি খাওয়ার পরেও আমার অলস ভাব কাটছে না কেন। আপনি আপনার সারাদিনের রুটিন মতন কাজ করলেও আপনার কোন কাজে মন লাগছে না। সারাদিন নিজেকে অলস এবং ক্লান্তি মনে হয়।  তাহলে আপনি বুঝবেন এটা বাস্তুদোষ এর সমস্যার একটা ইঙ্গিত। 

 কমফোর্ট জন জেনেও আপনি বেরিয়ে আসতে পারছেন না

আপনি কোন একটা কাজের মধ্য থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করছেন কিন্তু বেরিয়ে আসতে পারছেন না। ওই কাজের প্রতি এতটাই আসক্ত হয়ে পড়েছেন যে। না পারছেন ছাড়তে না পারছেন না ভালোভাবে ধরতে। ধরো আপনি কোন ব্যবসা করছেন আপনার ব্যবসায় ক্রমাগত লোকসান হয়ে যাচ্ছে কিন্তু সেই ব্যবসা বন্ধ করার আপনার সাহস হচ্ছে না । আপনি আগে থেকে বুঝতে পেরেছেন এই ব্যবসায় আমার কোন উন্নতি হবে না। তাও আপনি ওই ব্যবসা কিংবা চাকরি কে ছাড়তে পারছেন না। আপনি নতুন কোন কিছু করার সিদ্ধান্ত নিতে পারছেন না।  আপনি সঠিক এবং কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারছেন না। তাহলে আপনাকে বুঝতে হবে আপনার বাস্তুর দোষের এটা একটা ইঙ্গিত। 

পদোন্নতি না হওয়া

 অনেকেই থাকে যারা অনেক কাজে দক্ষ। কিন্তু সে কাজ সে তার দক্ষতার সঙ্গে করতে পারছে না। সব সময় জন্য ওই কাজে ঘাটতি দেখা দিচ্ছে। আপনি চাকরি করছেন  আপনি যে কাজটি করছেন ভালো করে করার পরেও আপনার বসের কাছে প্রশংসা পারছেন না। কাজ দক্ষতার সঙ্গে করার পরেও আপনার প্রমোশন হচ্ছে না। বা কোন ব্যক্তি যার যোগ্যতা থাকা সত্ত্বেও কোন চাকরি পাচ্ছে না। এই ধরনের মানুষ সবসময় পিছিয়ে থাকে। তাহলে আপনাকে বুঝতে হবে আপনার বাস্তুর দোষের কিছু সমস্যা রয়েছে। 

আর্থিক সমস্যা

 আপনি একটা ভালো পোস্টে চাকরি করেন । এখন বেতনও খুব ভালো কিন্তু আপনি টাকা সঞ্চয় করে রাখতে পারেন না। কোন একটা প্রয়োজন কাজের সময় আপনার কাছে টাকা থাকে না। ওই কাজটি করার সময় আপনাকে কয়েকবার ভাবতে হয়। অর্থের কারণে পরিবারে অনেক ভালো কাজ হয় না। আপনার ইনকাম তো ভালো হচ্ছে কিন্তু সঞ্চয় করতে পারছেন না । এইগুলি যদি আপনার সঙ্গে ঘটে থাকে তাহলে বুঝবেন আপনার বাস্তুতে কোন সমস্যা রয়েছে। 

 বাড়িতে সব সময় সুস্থতা লেগেই রয়েছে

 যদি দেখেন আপনার বাড়িতে অকারণেই সবাই অসুস্থ হয়ে পড়ছে। এবং আপনার পরিবারের সব সময় কারও না কারও অসুস্থতা ধরেই আছে। আপনার ছোট কোনো অসুস্থতা আপনাকে অনেক কষ্ট দিচ্ছি। আপনার অসুস্থতা থাকার সত্বেও আপনি চিকিৎসকের কাছে পরামর্শ নিতে পারছে না। আপনি শারীরিক এবং মানসিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়েছেন। আপনি স্বাধীন ভাবে জীবন যাপন করতে পারছেন না। এই সমস্ত কারণ গুলি ও গুরুতর বাস্তু ত্রুটির লক্ষণ।

ভুল মানুষের সঙ্গে সম্পর্ক

 কিছু কিছু মানুষ আছে যার প্রতি পদক্ষেপে ভুল মানুষের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে। কিছু মানুষ আছে যারা সবসময় ভুল মানুষের প্রেমে পড়ে। আমার ব্যবসা করতে গেলে ভুল মানুষের সঙ্গে ব্যবসায় জড়িয়ে পড়ে ফলে ব্যবসা অনেক ক্ষতি হয়। এছাড়াও ভালোবাসার মানুষের কাছ থেকে সবসময় প্রতারণা। বন্ধু-বান্ধবের কাছ থেকে প্রচারণা । এবং আত্মীয় স্বজনদের কাছ থেকে স্বার্থপর ব্যবহার পায়। এই সমস্ত ঘটনা যদি আপনার সঙ্গে বারবার হয়ে থাকে তাহলে বুঝবেন বাস্তবে  ত্রুটির কারণ রয়েছে। 

 ব্যবসায় বাধা

আপনি ব্যবসা শুরু করবেন ভাবছেন কিন্তু শুরু করতে পারছেন না। আপনার কোন না কোন সমস্যা লেগেই রয়েছে। সে পরিবার হোক কিংবা নিজের। কিংবা আপনি ব্যাবসা শুরু করে দিয়েছেন কিন্তু ব্যবসার কোন উন্নতি হচ্ছে না। ফলে আপনি ওই ব্যবসা ছেড়ে অন্য ব্যবসা করতে গেলেও। ওই ব্যবসাতেও আপনাকে লস এর মুখ দেখতে হচ্ছে ।

জীবনে আনন্দের অভাব

আপনার জীবনে কোনো অভাব নেই।  আপনার ভালো গাড়ি আছে ভালো বাড়ি  আছে। আপনার সমাজের মান সম্মান আছে সবাই শ্রদ্ধা করে। আপনি সুন্দর সুন্দর পোশাক পরেন। আপনার পরিবারেরও কোন সমস্যা নেই। আপনার সবকিছু থাকার পরেও আপনাকে আনন্দে থাকার অভিনয় করতে হয়। আপনি মানসিক দিক দিয়ে ভালো নেই।  আপনার সব সময় নিজেকে একা একা মনে হয়। কোন কিছুতে আপনার ভালো লাগেনা। সমস্ত কিছুতেই নিজেকে অর্থহীন মনে হয়। এই সমস্ত ঘটনা যদি আপনাদের সঙ্গে ঘটে থাকে তাহলে বুঝবেন গুরুতর  বাস্তু ত্রুটি দিক নির্দেশ করে। 

পারিবারিক সমস্যা

 কিছু মানুষের জীবনে এমন পরিস্থিতি সৃষ্টি হয় একে অপরের মধ্যে সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন হয়।  সব সময়ের জন্য বিবাদ লেগেই থাকে।  স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দূরত্ব বাড়তে থাকে। একে অপরকে সহ্য করতে পারেনা। আপনি আপনাদের সম্পর্কে কিছু ভালো করার চেষ্টা করছেন কিন্তু করতে পারছেন না। আপনি যা কিছু করার চেষ্টা করেন সবকিছু ভুল প্রমাণ করে। কেউ আপনাকে বুঝতে চায় না। এই সমস্ত কারণ হতে পারে  বাস্তব ত্রুটির কারণে। 

অকারনে দুশ্চিন্তা

 কিছু কিছু ব্যক্তি অকারনে কারণে দুঃশ্চিন্তা করে। তার ব্যবসা ভালো চলছে কিংবা  ভালো চাকরি করে। কিন্তু তার মনে সব সময় একটাই চিন্তা তার ব্যবসা ভালো চলবে তো তার চাকরি থাকবে তো। স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে সম্পর্ক ভালো কিন্তু তার মনে  দুশ্চিন্তা তাদের সম্পর্ক টিকবে তো।  তার সবকিছুতেই অসম্ভব অসম্ভব মনে হয়। এই সমস্ত কারণ হয়ে থাকলে বুঝবেন  বাস্তু ত্রুটির সমস্যা রয়েছে। 

এদের মধ্যে কোন সমস্যা আপনাদের মধ্যে দেখা দেয় তাহলে বুঝবেন আপনার বাড়িতে কিংবা অফিসে বাস্তু ত্রুটির সমস্যা  রয়েছে। এগুলি থেকে মুক্তি পেতে আপনাকে প্রথমে খুব শান্ত মাথায় সবকিছু বিবেচনা করতে হবে। এবং নিজেকে সবকিছু ঠিক করার চেষ্টা করতে হবে। না হলে যেকোনো  বাস্তুবিদ দের সঙ্গে পরামর্শ করতে হবে। 

এই সমস্ত পরিস্থিতি আমাদের টিম ফেস করেননি। এই প্রতিবেদনটি লেখা হয়েছে বাস্তুবিদ সঙ্গে আলোচনা করে। এই প্রতিবেদনটি লেখার কারণ হচ্ছে আপনাদের সুবিধার জন্য।


প্রতিবেদন  

 এই প্রতিবেদনটা যদি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই এই প্রতিবেদনটি কি শেয়ার করবেন। এবং এই রকম আরো নিত্য নতুন খবরের  আপডেট পেতে আমাদের ওয়েবসাইটের সঙ্গে যুক্ত থাকুন ।  এবং যে কোনো সোশ্যাল  মিডিয়ায় এই প্রতিবেদনটি শেয়ার করুন। ধন্যবাদ প্রতিবেদনটি পড়ার জন্য। 

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published.